পুরুষ সেজে কি’শোরীর স’র্বনাশ করল নারী, অ’তপর স্বামীর আ’ত্মহ’ত্যা

এখনবাংলা: এক কিশোরী পুলিশের কাছে অ’ভিযোগ জানায়, তাকে ধ’র্ষণ করেছে ৩২ বছর বয়সী এক যুবক। ওই যুবকের বি’রুদ্ধে একাধিকবার শা’রীরিক নি’র্যাতনের

অ’ভিযোগ জানায় ওই কিশোরী। কি’শোরীর অ’ভিযো’গের ভিত্তিতে অভি’যুক্তকে গ্রে’ফতারও করে পুলিশ। এরপরই স্ত’ম্ভিত হয়ে যায় আইনশৃ’ঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা। কারণ,

কিশোরীর ওপর শারী’রিক নি’র্যাতন চালানো অ’ভিযুক্ত কোনও যুবক নয়, বরং পুরু’ষের ছদ্মবেশে থাকা এক ত’রুণী! চ’মকে দেওয়ার মতো এই ঘটনাটি ঘটেছে ভারতের অন্ধ’প্রদেশের প্রকাশম জেলায়।

অভিযুক্ত তরুণীর নাম সুমলতা। সুম’লতাই পুরুষ সেজে সাই র’মেশ রেড্ডি নামে ওই কিশো’রীর স’ঙ্গে আ’লাপ জমায়। পরে সুযোগ বুঝে ধ’র্ষণ করে ওই কি’শোরীকে। কিন্তু ওই যু’বতী কিশোরীটিকে

ধ’র্ষণ করল কী করে? স্থানীয় পুলিশের ডেপুটি ক’মিশনার বি রবি চন্দ্র জানান, পু’রুষের ছ’দ্মবেশে থাকা সুমলতা সে’ক্স ট’য়ের সা’হায্যে শা’রীরিক স’ম্পর্ক তৈরি করে ওই কিশো’রীকে ধ’র্ষণ করেছে।

পুলিশ জানায়, সুমলতা পু’রুষের ক’ণ্ঠস্ব’রে কথা বলায় পটু। তাই সহজেই পু’রুষের ছ’দ্মবেশে মেয়েদের সঙ্গে আলাপ করত সে। তদন্তে জানা গেছে, স্থা’নীয় এক সিম কার্ড বি’ক্রেতার কাছ থেকে

ওই কিশো’রীর মোবাইল নম্বর সংগ্রহ করে সুম’লতা। ঘটনায় ভামসি কৃ’ষ্ণ নামের ওই সিম কার্ড বি’ক্রেতাকেও গ্রে’ফতার করেছে পুলিশ। তদ’ন্তে নেমে পুলিশ জানতে পেরেছে,

অ’ভিযুক্ত ত’রুণী বিবাহিত। স্ত্রী’র অপ’কর্মের কথা জানতে পেরে আ’ত্মঘা’তী হয়েছেন ওই তরু’ণীর তৃ’তীয় স্বামী।

ফেসবুকে আমরা